৩০শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ রাত ৮:২১

বন্যা পরিস্থিতি ‘ভয়াবহ’ নয় বলায় সমালোচিত হচ্ছেন অধ্যাপক জাকির

সোনার সিলেট ডেস্ক
  • আপডেট বৃহস্পতিবার, জুন ২৩, ২০২২,
  • 10 বার পঠিত

চলমান বন্যা স্মরণকালের ইতিহাসে ভয়াবহ বলেই সিলেটে ছুটে এসেছেন খোদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ভয়াল বন্যায় সৃষ্ট সিলেটের মানুষের দুঃখ-দুর্দশা নিজ চোখে অবলোক করতেই প্রধানমন্ত্রীর এই গুরুত্বপূর্ণ সফর। শুধু সফরই করেননি সরকারপ্রধান- নিজের তহবিল থেকে সিলেট ও সুনামগঞ্জের বন্যার্তদের সহায়তায় নগদ অর্থও প্রদান করেছেন।

কিন্তু সেই প্রধানমন্ত্রীর সামনে বক্তব্য রাখতে গিয়ে সিলেটের ভয়াবহ বন্যাকে ‘হালকা রূপে’ উপস্থাপন করলেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন!

এ নিয়ে সিলেটে শুরু হয়েছে তোলপাড়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে দল-মত নির্বিশেষে অধ্যাপক জাকিরের বক্তব্যের সমালোচনায় মেতে উঠেছেন সচেতন সিলেটবাসী।

মঙ্গলবার (২১ জুন) সিলেট, সুনামগঞ্জ ও নেত্রকোনা জেলার বন্যা দুর্গত এলাকা পরিদর্শন করেছেন প্রধানমন্ত্রী। সকাল ৮টায় রাজধানীর তেজগাঁওয়ের পুরাতন বিমানবন্দর থেকে হেলিকপ্টারযোগে বন্যা দুর্গত এলাকার উদ্দেশ্যে রওনা দেন তিনি। হেলিকপ্টারে করে বন্যা পরিস্থিতি অবলোকন করেন প্রধানমন্ত্রী। এসময় তাঁকে বহনকারী হেলিকপ্টার ‘লো ফ্লাই মোডে’ বন্যাকবলিত এলাকাগুলোর উপর দিয়ে উড়ে যায়।

পরিদর্শন শেষে সকাল ৯টা ৫৫ মিনিটে শেখ হাসিনা সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছেন। এরপর তিনি লালগালিচা দিয়ে বিমানবন্দরের ভিআইপি লাউঞ্জে প্রবেশ করেন। সকাল ১০টায় সিলেট সার্কিট হাউসের উদ্দেশে যাত্রা করেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানে বিভাগীয় ও জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা এবং স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময় করেন।

মতবিনিময়কালে প্রধানমন্ত্রীর সামনে বক্তব্য রাখতে গিয়ে একপর্যায়ে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন  বলেন- ‘এই যে (সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার) বঙ্গবন্ধু হাইটেক পার্কের আশ্রয়কেন্দ্রে সেনাবাহিনীর ভাইয়েরা তত্বাবধান করে বন্যার্তদের খাবার বিতরণ করছে এবং সর্বাত্মক সহযোগিতা করছে । কিন্তু ডিজিটাল ব্যবস্থার উপকার নিয়ে কিছু মোবাইল সাংবাদিক বন্যাকে ‘ভয়াবহ অবস্থা’ বলে সংবাদ প্রচার করতেছে। এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য আপনার প্রতি অনুরোধ জানাবো। কারণ- এখনে কোনো ভয়াবহ পরিস্থিতি নেই।’

অধ্যাপক জাকির আরও বলেন, ‘ঢাকায় অনেক সাংবাদিক গায়ে টক-শোর টেবিলে বসে, কফির কাপে চুমুক দিয়ে, বৃষ্টি না লাগিয়ে সিলেটের বন্যা নিয়ে অতরঞ্জিত বলেন। আসলে বাস্তবতা এমন নয়।’

অধ্যাপক জাকিরের এমন বক্তব্যের ভিডিও ফুটেজ ফেসবুকে ভাইরাল হলে আলোচনা-সমালোচনার ঝড় বইতে থাকে। সিলেটের সচেতন সমাজের বিস্ময়ভরা প্রশ্ন- আর কতটা ভয়ঙ্কর হলে অধ্যাপক জাকিরের কাছে সিলেটের বন্যা ‘ভয়াবহ’ হবে!

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ধরনের আরও সংবাদ

Rokomari Book

© All rights reserved © 2016 Paprhi it & Media Corporation
Developed By Paprhihost.com
ThemesBazar-Jowfhowo