১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ সকাল ৮:১৩

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে সাংবাদিক ব্লগার নুরুল আমিন গ্রেফতার। প্রেস ক্লাবের পক্ষ থেকে নিন্দা

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট বুধবার, মার্চ ৮, ২০২৩,

গতকাল মঙ্গলবার গভীররাতে সাদা পোশাকে নিজ বাড়ি থেকে সোনার সিলেট পত্রিকার সুনামগঞ্জ উপজেলা প্রতিনিধি ও সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সদস্য এবং ব্লগার নুরুল আমিনকে কে তথ্য ও প্রযুক্তি আইনের মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার করেছে সুনামগন্জ সদর থানা পুলিশ। এনিয়ে সাংবাদিক সমাজে চরম ক্ষোভ বিরাজ করছে।

সাংবাদিক নুরুল আমিনের পিতা জানান দিবাগত রাত ৯ টার দিকে পুলিশ পরিচয়ে কয়েকজন অস্ত্রধারী লোক নুরুল আমিনকে তাদের বাড়ি থেকে মাইক্রোবাসে উঠিয়ে নিয়ে যায়। পরে তিনি থানায় গিয়ে জানতে পারেন সাইবার ট্রাইব্যুনালে দায়ের করা একটি মামলায় নুরুল আমিনকে আটক দেখানো হয়েছে। এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানতে চাইলে থানার ওসি কোন সদুত্তর দেননি এবং ব্যাস্ততা দেখিয়ে এড়িয়ে যান।

বিভিন্ন সময় প্রভাবশালী চোরাকারবারীদের বিরুদ্ধে অনুসন্ধানী প্রতিবেদন প্রকাশ করে আসছিলেন সাংবাদিক নুরুল আমিন । সর্বশেষ সংসদ সদস্য মানিককে নিয়ে ব্যাক্তিগত ব্লগে লেখালেখি করেন তিনি। দীর্ঘদিন যাবত তিনি গুম-হামলা ও মামলার হুমকি পাচ্ছিলেন। প্রতিবেদন প্রকাশের জেরে গত ২৫ ফ্রেরুয়ারী ২০২৩ তারিখে সোনার সিলেট পত্রিকা অফিসে হামলা ও ভাঙচূড় চালায় সন্ত্রাসীরা। এসময় তারা ল্যাপটপ,সিসিটিভি ক্যামেরা সহ অফিসের গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন নথিপত্র ধ্বংস করে। ৮ ফ্রেরুয়ারী ২০২৩তারিখে পত্রিকার জন্য নিউজ সংগ্রহের জন্য মাদক কবলিত এলাকায় গেলে ছাত্রলীগ নেতার পালিত সন্ত্রাসীরা প্রাণনাশের উদ্দেশ্যে নুরুল আমিনের উপর হামলা চালায় এবং মারাত্মক ভাবে আহত করে। সর্বশেষ ১৬ ফ্রেরুয়ারী ছাত্রলীগ নেতা রবিউল ইসলামের আদেশে ছাত্রলীগের অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা তার বাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি ও ভয়ভীতি প্রদর্শন করে। এ ব্যাপারে পরিবারের লোকজন মামলা করতে গেলে সুনামগঞ্জ সদর থানা পুলিশ মামলা গ্রহণ না করে একটি সাধারণ ডায়েরি লিপিবদ্ধ করে এবং তদন্ত সাপেক্ষে ব্যাবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেয়।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এলাকাবাসীর অনেকেই বলেন,অবৈধ পণ্য চোরাকারবারিদের বিরুদ্ধে সোচ্চার ছিলেন সাংবাদিক দেলোয়ার হোসেনকে । জেলা এবং উপজেলায় মাদকের আস্তানা ও গডফাদারদের বিরুদ্ধে তিনি তার পত্রিকা এবং ব্লগে লেখালেখি করেছিলেন। পরে পুলিশ জড়িতদের আটক করে জেলহাজতে পাঠান। এর পর থেকে তার জীবনে বৈরীতা সৃষ্টি হয়। আটককৃত মাদক কারবারিরা প্রভাবশালী হওয়ায় মিথ্যা সাজানো মামলায় তাকে আটক করে পুলিশ।

এ ব্যাপারে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে সাংবাদিক ও ব্লগার নুরুল আমিনকে মুক্তি দাবী করে বিবৃতি দিয়েছে জেলা প্রেসক্লাব। অন্যদিকে, ক্ষোভে ফেটে পড়েছে সিলেটসহ সারাদেশের সাংবাদিকরা। সাংবাদিক নুরুল আমিনের মুক্তি এবং মিথ্যা মামলা দ্রুত প্রত্যাহারের দাবীতে সারাদেশে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ কর্মসূচীর হুশিয়ারি দিয়েছে সিলেট রিপোর্টার্স ইউনিটি ও সিলেট প্রেসক্লাব সহ সকল সাংবাদিক সংগঠনগুলো।

এ বিষয়ে সিলেট সদর থানার ওসি বেলায়েত হোসেন বলেন, “সাংবাদিক নুরুল আমিনের সাথে আমার এবং আমাদের ব্যক্তিগত কোন শত্রুতা নেই। তার বিরুদ্ধে তথ্য ও প্রযুক্তি আইনে একটি অভিযোগ আসলে তদন্ত করে সেটার সত্যতা পাওয়া যায়। ফলে তাকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।”

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ধরনের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2016 Paprhi it & Media Corporation
Developed By Paprhihost.com
ThemesBazar-Jowfhowo